শনিবার, ০১ নভেম্বর ২০১৪ ।

সারাদেশ বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন

রাজাধানী ঢাকাসহ সারাদেশ বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মকর্তারা বাংলামেইলকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। শনিবার সকাল থেকেই বিভিন্ন এলাকা বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। জাতীয় গ্রিডে বিপর্যয়ের কারণে এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। শনিবার বিকেল ৫টার দিকে বিদ্যুৎ ব্যবস্থা আবার স্বাভাবিক হবে বলে মাইকিং করে জানানো হয়েছে।

নাটোরের পথে খালেদা জিয়া

২০ দলীয় জোটের জনসভায় যোগ দিতে নাটোরের উদ্দেশে রওনা হয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় গুলশানের বাসা থেকে রওনা হন তিনি। বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসসহ ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতারা তার সফর সঙ্গী হিসেবে রয়েছেন। বিকেল ৩টায় নাটোরের নবাব সিরাজ উদদৌলা কলেজ মাঠে এ জনসভা অনুষ্ঠিত হবে। সভায় সভাপতিত্ব করবেন বিএনপির কেন্দ্রীয় স্বনির্ভর বিষয়ক সম্পাদক এবং জেলা বিএনপির সভাপতি অ্যাডভোকেট রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু। শুক্রবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে মঞ্চ পরিদর্শনে আসেন রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু।

গণঅভ্যুত্থানে ক্যামপাওরের বিদায়

অবশেষে গণঅভ্যুত্থানের মুখে পদত্যাগ করতে বাধ্য হলেন প্রেসিডেন্ট ব্লেইস ক্যামপাওরে। বিরোধী দলীয় হাজার হাজার লোক পার্লামেন্টে হামলা ও অগ্নিসংযোগের একদিন পর তিনি পদত্যাগের ঘোষণা দিলেন। তার পদত্যাগের ঘোষণার পর জনতা রাস্তায় নেমে এসেছে। রাজধানী ওয়াগাদোগোয় রাস্তায় রাস্তায় জনগণ নেচে উল্লাস করছে। ক্যামপাওরে টানা ২৭ বছর শাসন করেছেন পশ্চিম আফ্রিকার দেশ বুরকিনা ফাসো। বিরোধীরা দীর্ঘদিন ধরে তা পদত্যাগ দাবি করে আসছিলেন। কিন্তু জনগণের দাবি মেনে না নিয়ে আরো ১ বছর ক্ষমতায় থাকার জন্য সংবিধান সংশোধনের উদ্যোগ নিয়েছিলেন এই স্বৈরশাসক। ফলে দেশ জুড়ে গণঅভ্যুত্থানের সৃষ্টি হয়। তবে ক্যামপাওরে পদত্যাগ করলেও দেশটির নিয়ন্ত্রণ নিয়ে সেনাবাহিনী বিভক্ত হয়ে পড়েছে। বিবিসি জানায়, প্রেসিডেন্ট গার্ডের সেকেন্ড ইন কমান্ড কর্নেল আইজ্যাক জিদা বলেছেন, রাষ্ট্রের প্রধান হিসাবে তিনি দেশটির নিয়ন্ত্রণ নিয়েছেন।
ভারত থেকে আমদানি করা বিদ্যুৎ সঞ্চালনে সমস্যা দেখা দেয়ায় অন্ধকারে রয়েছে সারা বাংলাদেশ। বাংলামেইলকে এ তথ্য নিশ্চিত কলেছেন পাওয়ার ডেভেলপমেন্ট বোর্ডের (পিডিবি) গণসংযোগ সেলের পরিচালক সাইফুল ইসলাম। সাইফুল ইসলাম বাংলামেইলকে বলেন, ‘ভারত থেকে আনা বিদ্যুৎ সঞ্চালনে সমস্যা দেখা দেয়ায় সারাদেশ বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন। সাড়ে ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এতে দেশের পাওয়ার স্টেশনগুলো একসঙ্গে বন্ধ হয়ে যায়। বিদ্যুৎ চালু করতে গেলে একটা একটা করে স্টেশন চালু করতে হবে। এর সমাধানে দ্রুত কাজ চলছে। ইতিমধ্যে কাপ্তাই বিদ্যুৎকেন্দ্র চালু হয়ে গেছে।’ তিনি আরো জানান, এখন সিলেট অঞ্চলের কাজ চলছে। এরপর ময়মনসিংহ অঞ্চলের কাজ শুরু হবে। আশা করা যাচ্ছে বিকেলের মধ্যেই তা ঠিক হয়ে যাবে।
জালনোট তৈরি ও বাজারজাতকরণ প্রক্রিয়া মূলত তিনটি স্তরে বিভক্ত। প্রথম স্তরের গ্রুপটির নাম ‘কাগজ প্রস্তুতকারী’ গ্রুপ-যারা নোটের যাবতীয় নিরাপত্তা বৈশিষ্ট সম্বলিত কাগজ তৈরি করে। দ্বিতীয় স্তরের গ্রুপটির নাম ‘নোট প্রস্তুতকারী’ গ্রুপ। এ গ্রুপের কাজ কম্পিউটার ও প্রিন্টারের মাধ্যমে নোট প্রস্তুত করা। সবশেষ এই জালনোট চলে যায় তৃতীয় স্তরের গ্রুপটির কাছে। এদের কাজ মূলত জালনোটগুলোকে বিভিন্ন পন্থায় বাজারজাত করা। তাই এই গ্রুপের নাম ‘বাজারজাতকারী’ গ্রুপ। কাগজ প্রস্তুতকারী গ্রুপ: এক লাখ টাকার জালনোট তৈরির কাগজ প্রস্তুত করতে প্রথম গ্রুপের খরচ হয় ১০ থেকে ১২ হাজার টাকা। পরে তারা এই জালনোটের জন্য প্রস্তুতকৃত কাগজগুলো দ্বিতীয় গ্রুপের কাছে ১৫ থেকে ২০ হাজার টাকায় সরবরাহ করে। নোট প্রস্তুতকারী গ্রুপ: দ্বিতীয় স্তরের এই গ্রুপটির কাজ এক লাখ টাকার জালনোটের কাগজগুলোকে কম্পিউটারে ও প্রিন্টারের
নাম পাল্টে গেল ভারতের ১১টি শহরের। চলতি বছরের ১ নভেম্বর থেকে কার্যকরী হচ্ছে শহরগুলোর নতুন নাম। আর তাই এখন থেকে ব্যাঙ্গালোর নয়, নাম হবে বেঙ্গালুরু।
মঞ্চের সামনে বিএনপির সব অঙ্গ সংগঠনের কর্মী সমর্থকরা মাঠে আলাদা রংয়ের পোশাক পরে আলাদা ভাবেই অবস্থান করবেন। এর মধ্যে ছাত্রদল লাল গেঞ্জি, যুবদল সবুজ গেঞ্জি, স্বেচ্ছাসেবক দল হলুদ গেঞ্জি, ওলামা দল সাদা পায়জামা পাঞ্জাবী ও টুপি, কৃষকদল মাথায় মাথাল, তাঁতীদল ঘাড়ে গামছা ও মৎস্যজীবী দল ধুতি গেঞ্জি পড়ে এবং মাছ ধরার সামগ্রী হাতে নিয়ে মাঠে অবস্থান করবে। ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরিকদল জামায়াতে ইসলামীর কর্মী সমর্থকদের জন্য মাঠের পশ্চিমপাশে জায়গা রেখে মাঠের অন্য সব অংশ বিএনপির সকল অঙ্গ সংগঠনের মধ্যে ভাগ করে দেয়া হয়েছে। প্রতিটি ভাগে যার যার রংয়ের পোশাক পড়ে হাতে রঙিন বেলুন নিয়ে হাজার হাজার কর্মী সমর্থক অবস্থান করবে। খালেদা জিয়া মাঠে আগমনের পর এক সঙ্গে পুরো মাঠে হাজার হাজার কর্মী সমর্থক এসব গ্যাসভরা বেলুন আকাশে উড়িয়ে দিবে।
পদ্মা সেতুর মাটি পরীক্ষার কাজ শুরু হবে আজ শনিবার। বৃহস্পতিবার মাটি পরীক্ষার কাজ করার কথা ছিল। কিন্তু বিভিন্ন কারণে তা শুরু করা সম্ভব হয়নি। বুধবার সেতু ভবনের সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলী, ঠিকাদার ও সেতু কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বৈঠকের পর শনিবার মাটি পরীক্ষা শুরুর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। মাটি পরীক্ষার জন্য ছোট আকারের চার সেট গুরুত্বপূর্ণ যন্ত্রপাতি এবং কেমিক্যাল বিমানযোগে চীন থেকে হযরত শাহজালাল (রহ.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর হয়ে মাওয়ায় পৌঁছেছে। ইতোমধ্যে সেতুর মোট ২৬৬টি পিলারের মধ্যে ৬৬টি পিলারের স্থানও নির্ধারণ করা হয়েছে। এর মধ্যে পাঁচটি পিলারের পয়েন্ট নিয়ে কিছুটা সমস্যা হওয়ায় কাজে সাময়িক বিলম্ব হচ্ছে। আগামী দু'একদিনের মধ্যে এ সমস্যার সমাধান হবে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী (মূলসেতু) দেওয়ান আব্দুল কাদের জানান, সেতুর মোট ২৬৬টি পিলারের মধ্যে মাওয়া প্রান্তের ৬৬টি পিলারের পয়েন্ট নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে ৫টি পিলারের স্থানে দোকানঘর থাকায় এখানে মাটি পরীক্ষার কাজে সাময়িক অসুবিধা হচ্ছে। পদ্মা সেতুর জন্য অধিগ্রহণকৃত এসব জমির মালিককে পিলারের স্থান থেকে দোকানঘরসহ বিভিন্ন স্থাপনা সরিয়ে নিতে বলা হয়েছে। দু'এক
শিগগিরই কওমি মাদরাসার সনদের স্বীকৃতি দিচ্ছে সরকার। এ ব্যাপারে তথ্য সংগ্রহ ও পর্যালোচনার কাজ চলছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয় বিষয়টি সক্রিয়ভাবে বিবেচনা করছে। বাংলামেইলকে এমন তথ্য জানিয়েছেন ঐতিহাসিক শোলাকিয়ার ঈদগাহ মাঠের ইমাম ও বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামার চেয়ারম্যান আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ। ২০১৩ সালের ২৮ অক্টোবর কওমি মাদরাসা শিক্ষার সরকারি স্বীকৃতির জন্য ‘বাংলাদেশ কওমি শিক্ষা কর্তৃপক্ষ আইন-২০২৩’ এর খসড়া মন্ত্রিপরিষদে অনুমোদন জন্য উঠলেও প্রত্যাহার করে নেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়। যদিও দেশের বিভিন্ন মাদরাসার বোর্ড ও সংশ্লিষ্টদের দীর্ঘ দিনের দাবি ছিল কওমি মাদারাসা স্বীকৃতি। আবার কেউ কেউ এর বিরোধিতা করেন। কারণ হিসেবে বলেন, এই আইন হলে মাদরাসার ওপর সরকারের নিয়ন্ত্রণ আরোপিত হবে। সেই সময়ে ‘কওমি মাদ্রাসা আইন পাস হলে দেশে গৃহযুদ্ধ হবে’ বলে সরকারকে হুঁশিয়ার দিয়েছিলেন হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী।

বিপদে অস্ট্রেলিয়া

শনিবার আবু ধাবি টেস্টের তৃতীয় দিন প্রথম সেশনেই চারটি উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়েছে অস্ট্রেলিয়া। দিনের শুরুতেই সাজঘরে ফিরেছেন ডেভিড ওয়ার্নার, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, স্টিভ স্মিথ ও নাথান লায়ন। এ প্রতিবেদন লেখার সময় অস্ট্রেলিয়া তাদের প্রথম ইনিংসে ২৯.৪ ওভার ব্যাট করে পাঁচ উইকেট হারিয়ে ১০০ রান সংগ্রহ করেছে। পাঁচ উইকেট হাতে রেখে পাকিস্তানের প্রথম ইনিংসের থেকে এখনো ৪৭০ রান পিছিয়ে ‘ক্যাঙ্গারু’রা। ব্যাট করছেন মাইকেল ক্লার্ক (১৯) ও মিশেল মার্শ(০)।

আবু ধাবিতে রেকর্ডের ছড়াছড়ি

যেন সেঞ্চুরির প্রদশনী, সাথে রেকর্ডেরও! আবু ধাবিতে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিনে ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকালেন ইউনিস খান। সেঞ্চুরি তুলে নিলেন মিসবাহ উল হকও। আগের দিন একই পথে হেঁটেছেন আজহার আলিও। সব মিলিয়ে ২০ বছর পর অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ জয়ের সুভাস পাচ্ছে পাকিস্তানিরা। এই টেস্টে ভাঙা-গড়া হয়েছে অসংখ্য রেকর্ড।

৪২ মিলিয়ন ক্ষতিপূরণ দাবি ভারতের

ভারত সফরের মাঝপথে হঠাৎ করে দেশে ফিরে যাওয়ায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডের নিকট থেকে প্রায় ৪২ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ক্ষতিপূরণ দাবি করেছে বিসিসিআই। দাবিকৃত এই অর্থ হাতে না পাওয়া পর্যন্ত দুদেশের মধ্যে সব ধরনের ক্রিকেট সম্পর্ককে স্থগিত করেছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই)। তাছাড়া ক্যারিবীয়দের ১৫ দিনের সময়সীমাও বেধে দিয়েছে ভারত। এই সময়ের মধ্যে ডব্লিউসিবি থেকে কোনো সাড়া না পেলে আইনের দ্বারস্থ হবে পৃথিবীর সবচেয়ে ধনাঢ্য ও শক্তিশালী ক্রিকেট বোর্ডটি।

নিজের ক্লোন করতে চেয়েছিলেন জ্যাকসন

মৃত্যুর আগে প্রয়াত পপ সম্রাট মাইকেল জ্যাকসন নিজের ক্লোন তৈরি করতে চয়েছিলেন। এর জন্য তিনি লাখ লাখ ডলার ব্যয়ও করেছেন। তার জীবনী লেখক মাইকেল সি লাকম্যান এক সাক্ষাৎকারে সাড়া জাগানো এ তথ্য দেন। খবরে বলা হয়েছে, মৃত্যুর আগে জ্যাকসন তার ক্লোন নিয়ে গবেষণার জন্য ইউরোপীয় বিজ্ঞানীদের লাখ লাখ ডলার দিয়েছিলেন। তার ইচ্ছা ছিল, এ ক্লোন থেকে একটি ক্ষুদে জ্যাকসন দলের সৃষ্টি হবে এবং তারাও একদিন তার মতো দুনিয়া মাতাবে। আর তাদের মধ্যেই বেঁচে থাকবেন প্রয়াত এই সুপারস্টার।

স্বাদের ভিন্নতায় চিড়ার জর্দ্দা

কর্মব্যস্ত জীবনে সব কাজে স্বতস্ফূর্ত সময় দিলেও রান্নায় দেয়াটা অনেকের জন্যই কষ্টকর। তবু বেঁচে থাকার তাগিদে রান্নাঘরে কিছুটা সময় দিতেই হয়। রান্নাটাও হয় কোনোরকম। একঘেয়ে এই জীবনে স্বাদের ভিন্নতা আনতে সময়ের খুব অভাব। তাই আপনাদের জন্য রইলো স্বল্প সময়ে স্বাদের ভিন্নতায় চিড়ার জর্দ্দার দারুণ এক রেসিপি। ছোট বড় সবার মুখোরোচক এই খাবার অতিথি আপ্যায়ণেও সেরা।
রেলওয়ের একাধিক সূত্রের সঙ্গে কথা বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে সিলেট-আখাউড়া রেললাইনে ও কুলাউড়া-শায়েস্তাগঞ্জ সেকশনে অনুমোদিত ও অনুমোদনবিহীন প্রায় শতাধিক রেলক্রসিং রয়েছে। তন্মধ্যে অনুমোদিত রেলক্রসিংয়ের সংখ্যা মাত্র ২৯টি। এ ২৯টি অনুমোদিত রেলক্রসিংয়ের মধ্যে মাত্র ৬টিতে গেইটম্যান কর্মরত আছেন। বাকি ২৩টি রেলক্রসিংয়ে কোনো গেটম্যান নেই। অনুমোদিত ২৯টি রেলক্রসিং ছাড়া বাকিগুলো নির্মাণ হয়েছে সংশ্লিষ্ট এলাকাবাসীর উদ্যোগে। এসবের কোনো সঠিক পরিসংখ্যান রেল কর্তৃপক্ষের কাছে নেই। রেলওয়ের কুলাউড়াস্থ প্রকৌশল বিভাগ জানায়, শুধুমাত্র শায়েস্তাগঞ্জ থেকে কুলাউড়া হয়ে সিলেট পর্যন্ত রেললাইনের বিভিন্ন অংশে কমপক্ষে ৫১টি রেলক্রসিং রয়েছে। এরমধ্যে মাত্র ১৭টির অনুমোদন রয়েছে। বাকি ৩৪টি রেলক্রসিং অনুমোদনবিহীন। রেলওয়ের ওই অংশে ২০০০ সালের মে মাসে শ্রীমঙ্গলের সাতগাঁও এলাকায় অনুমোদনবিহীন রেলক্রসিং-এ ট্রেনের ধাক্কায় ২ বেবিটেকসি আরোহী নিহত হন।

অরক্ষিত রেলক্রসিং যেন মৃত্যুফাঁদ

সারাদেশ ৭২টি পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির (পবিস) কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে। ফলে বাধাগ্রস্ত হচ্ছে ১৭ হাজার ৮৯২ কোটি টাকা ব্যয়ের ১৮টি প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ। এতে সরকারের বিদ্যুৎ সেক্টরের ২০২১ ভিশন অর্জনও বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। বিদ্যুৎ বিভাগ গত ৮ মাসে বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন ( বাপবি ) বোর্ডের সদস্য ( সমিতি ব্যবস্থাপনা) শূণ্য পদ পূরণ করতে না পারায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়া প্রশাসনিক কাজে স্থবিরতা, দালালচক্রের উত্থান ও গ্রাহক হয়রানি চরম পর্যায়ে পৌঁছেছে।

কী হচ্ছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিতে?

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চট্টগ্রাম সিটি গেট থেকে কুমিরা বাইপাস, পঞ্চশিলা বাজার থেকে কুমিরা বাইপাস প্যাকেজের ফুলতলা ও বারআউলিয়াসহ অন্যান্য অংশের রাস্তা, বাতিশা থেকে মহিপাল পর্যন্ত প্রায় ২০ কিলোমিটার, কুমিল্লা বাইপাস থেকে কুমিরা বাইপাস অংশের ২১ কিলোমিটার, কুটুম্বপুর থেকে কুমিল্লা বাইপাসের ময়নামতি ও নিমসার বাজার অংশে কোনো কার্যক্রম দেখা যায়নি।

ঢাকা-চট্টগ্রাম সড়কের কাজে অসন্তুষ্ট কমিটি

সম্প্রতি মন্ত্রিপরিষদ থেকে অব্যাহতিপ্রাপ্ত এবং দল থেকে বহিষ্কৃত আব্দুল লতিফ সিদ্দিকীর সংসদ সদস্য পদ আইনি জটিলতা তৈরি হয়েছে। দলের সদস্যপদ হারানোর পর তার সংসদ সদস্য পদ থাকছে কি না সে ব্যাপারে সংবিধান এবং গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশে (আরপিও) স্পষ্ট করে কিছু বলা নেই। ফলে আইনের ফাঁকে পার পেয়েও যেতে পারেন তিনি। গত শুক্রবার রাতে গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভায় লতিফের প্রাথমিক সদস্য পদ বাতিল করা হয়। বৈঠক শেষে দলটির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, ‘লতিফ সিদ্দিকীর প্রাথমিক সদস্যপদ বাতিল করা হয়েছে, এ সংক্রান্ত কাগজপত্র নির্বাচন কমিশনে পাঠানো হবে। আমরা তার এমপি পদ থেকে বহিষ্কারের জন্যও নির্বাচন কমিশনে লিখিত আবেদন জানাবো।

লতিফের এমপি পদ নিয়ে জটিলতা