শনিবার, ২৯ নভেম্বর ২০১৪ ।

আর বাকি

কুমিল্লায় পৌঁছেছেন খালেদা জিয়া

২০ দলীয় জোটের জনসভায় যোগ দিতে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া কুমিল্লায় পৌঁছেছেন। শনিবার দুপুর ২টার দিকে তিনি কুমিল্লা সার্কিট হাউজে তার গাড়িবহর নিয়ে আসেন। সেখানে কিছুক্ষণ বিশ্রাম নেবেন তিনি। পরে বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে কুমিল্লা শহরের টাউন হল মাঠে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট আয়োজিত জনসভায় যোগ দেবেন। এর আগে সকাল ১০ টা ২২ মিনিটে গুলশানের বাসভবন থেকে তার গাড়িবহর কুমিল্লার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। রাজধানীর পল্টন, যাত্রাবাড়ী, নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও, কুমল্লিার দাউদকান্দি হয়ে দুপুরে কুমিল্লা শহরে পৌঁছেন তিনি।

হুদার নতুন দল বিএমপি

নতুন রাজনৈতিক দল গঠনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপির সাবেক কেন্দ্রীয় নেতা ব্যারিস্টার নাজমুল হদা। দলের নাম দেয়া হয়েছে ‘জাতীয় মানবাধিকার পার্টি’। রাজধানীর তোপখানা রোডের মেহেরবা প্লাজায় নিজের কার্যালয়ে শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে নতুন দল গঠনের ঘোষণা দেন তিনি।

গ্যাসক্ষেত্রের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

হবিগঞ্জের বিবিয়ানা গ্যাসক্ষেত্র উদ্বোধন করেছের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শনিবার বেলা ১২টার দিকে তিনি ৩৪১ মেগাওয়াটের বিবিয়ানা-২ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উদ্বোধন করেন। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে হেলিকপ্টারে চড়ে তিনি সেখানে যান। পরে ৪শ’ মেগাওয়াটের বিবিয়ানা-৩ ও ৩৩০ মেগাওয়াটের শাহজিবাজার বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন প্রধানমন্ত্রী। বিকেল তিনটার দিকে তিনি হবিগঞ্জ নিউফিল্ড মাঠে এক জনসভায় বক্তব্য দেবেন। পরে তিনি ঢাকায় ফিরবেন।
দেশে গণতন্ত্রকে সুসংহত করতে হলে নির্বাচনের বিকল্প নেই। প্রধান নির্বাচন কমিশনার নির্বাচনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকেন। তাই সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য সরকারি ও বিরোধী দলের পক্ষ থেকে সংসদে একজন নিরপেক্ষ ব্যক্তির নাম ঘোষণা করা হবে। স্পিকার তাকেই প্রধান নির্বাচন কশিমনার (সিইসি) ঘোষণা করবেন। আর তিনিই নির্বাচনের আয়োজন করবেন।
শীর্ষ সন্ত্রাসী বা দাগি কোনো আসামি নয়, অলিতে গলিতে আতঙ্ক হয়ে উঠেছে উঠতি সন্ত্রাসীরা। পুলিশ ও র‌্যাবের অপরাধ তদন্তেও উঠে এসেছে একই রকম তথ্য। সাম্প্রতিক হত্যাকাণ্ড, ছিনতাইসহ অনেক অপরাধ ঘটিয়েছে- তরুণ বখাটেরা। প্রশাসনের কাছে তারা নতুন মুখ। জানা গেছে, অপরাধীদের তথ্য সংরক্ষণের জন্য ঢাকা মহানগর পুলিশ চার বছর আগে (২০১০ সালে) ৫১৬ জন উঠতি সন্ত্রাসীর একটি তালিকা করে। ওই তালিকা হালনাগাদ করে নতুন অপরাধীদের নজরদারিতে আনা হয়নি। দায়িত্বশীল পুলিশ ও র‌্যাব কর্মকর্তারা বলছেন, অপরাধীদের অধুনিক ডাটাবেজ করা হচ্ছে- যেখানে সব ধরনের অপরাধীর বিষয়েই তথ্য থাকবে। তাদের মতে, বড় ধরনের অপরাধ সংঘটনের আগে উঠতি সন্ত্রাসীদের তালিকাভুক্ত করাও কঠিন কাজ। গত বছর একটি গোয়েন্দা সংস্থা ঢাকার এলাকাভিত্তিক সন্ত্রাসীদের ৭০০ সন্ত্রাসীর একটি তালিকা তৈরি করেছে। ওই তালিকার একটি বড় অংশজুড়ে আছে স্কুল-কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থী ও তরুণ বখাটেরা। ঢাকা মহানগর পুলিশের মুখপাত্র গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘টিনএজ বা কম বয়সের অরাধীর সংখ্যা বাড়ছে। তারা যেমন পাড়া-মহল্লায় অপরিচিত, তেমনই পুলিশের কাছেও। ফলে অপরাধ করে সহজেই গা-ঢাকা দিচ্ছে তারা। ঘটনার পরই তদন্তে তাদের খোঁজ পাই আমরা। তবে অপরাধীদের ডাটাবেজে তাদের অর্ন্তভুক্ত করা হচ্ছে।’
সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (শাবিপ্রবি) ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় সংঘটনে ইমেজ সঙ্কটে পড়েনি বরে দাবি করেছেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি বদিউজ্জামান সোহাগ। তিনি বলেন, ‘শিক্ষাঙ্গনের এখনো সুষ্ঠু পরিবেশ রযেছে এবং অস্ত্রের পরিমাণ অনেক কমানো হয়েছে।’ শনিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। সংবাদ সম্মেলনে শাবিপ্রবির সংঘর্ষে নিহত সুমন দাসের বিষয়ে কেন্দ্রীয় সংসদের অব্স্থান অনড় রয়েছে বলে জানান সোহাগ।
ক্ষমতার মাত্র একবছরে সফলতার স্বাক্ষর রেখে চলেছিলেন সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। কিন্তু হঠাৎ করে তাকে সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া হত্যা মামলার সম্পূরক চার্জশিটে অন্তর্ভুক্ত করায় বিপাকে পড়েছেন তিনি। গত ১৪ নভেম্বর থেকে রয়েছেন আত্মগোপনে। তবে কিবরিয়া হত্যা মামলার সম্পূরক চার্জশিটে মেয়র আরিফের নাম অন্তর্ভুক্ত করাকে সরকারের জুলুম-নির্যাতনের অংশ ও আরিফের জনপ্রিয়তা কমানোর প্রয়াস বলে মন্তব্য করেছেন সিলেট বিএনপির নেতারা।
গত ২৫ নভেম্বর ফেসবুকে দেওয়া ওই পোস্টে চাঁদনি বলেন, 'আমি লজ্জিত। কিন্তু কোনও উপায় ছিল না। আশা করি, এই চূড়ান্ত পদক্ষেপের পর সরকার আমার অবস্থা সম্পর্কে জানতে পারবে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং মুখ্যমন্ত্রী আনন্দিবেন প্যাটেলের কাছে সাহায্যের অনুরোধ জানাচ্ছি।' তিনি আশা প্রকাশ করে আরো লিখেছিলেন,‘ আশা করছি ভারতের লোকজন আমার সাহায্যে এগিয়ে আসবে। কেননা তারা চাইবে না একটি মেয়ে এভাবে বিক্রি হয়ে যাক।’
স্থানীয় পুলিশের বরাত দিয়ে পত্রিকাটি জানায়, ঘটনার দিন ওয়াগমারে এবং তার স্ত্রী রানি(৩০)বরাবরের মত তাদের দুই মেয়েকে নিয়ে দোতলা বাড়ির ওপর তলার কামরায় ঘুমিয়ে ছিলেন। রাত সাড়ে তিনটার দিকে তাদের এক মেয়ে ঘুম থেকে ওঠে তার মাকে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে। সে তখন তার দাদা দামোদরকে ডেকে আনে। দামোদর ঘটনাটি পুলিশকে জানান। পুলিশ এসে ওয়াগমারেকে গ্রেপ্তার করে। গ্রেফতারকৃত বাজীরাও একজন শিক্ষিত এবং অবস্থাপন্ন কৃষক। স্থানীয় আদালত পাঁচ ডিসেম্বর পর্যন্ত তাকে রিমান্ডে দিয়েছেন।

ডাবল সেঞ্চুরি গড়তে ম্যাককুলামের রেকর্ড

আগের দিনই নিস্প্রাণ শারজায় প্রাণ ফিরিয়েছিলেন ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম। ফিলিপ হিউজের প্রয়াণে শোকের চাদর ঢাকা পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ড টেস্টের দ্বিতীয় দিনে দেশের পক্ষে দ্রুততম শতক হাঁকিয়েছিলেন। শনিবার সেই ম্যাককুলাম আরো একটি দারুণ নজির গড়লেন। ক্রিকেট বিশ্বের তৃতীয় ক্রিকেটার হিসেবে একশ’র বেশি স্ট্রাইক রেটে ডাবল সেঞ্চুরি করার কৃতিত্ব দেখালেন তিনি।

অবসরে যাচ্ছে হিউজের ৬৪ নম্বর জার্সি

শুধু ক্রিকেটাঙ্গন নয়, গোটা ক্রীড়াঙ্গনেই এখন শোকের চাদর। ফিল হিউজের অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যু নাড়িয়ে দিয়েছে বিশ্ব বিবেককে। কাঁদছে গোটা বিশ্ব। যে যার সামর্থ্য মতো হিউজের স্মৃতি স্মরণ করছেন। বাংলাদেশও এর ব্যতিক্রম ছিল না। শুক্রবার জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের চতুর্থ ওয়ানডে জয়কে হিউজের জন্য উৎসর্গ করেছে টাইগাররা। এর মাঝেই নতুন খবর অস্ট্রেলিয়ার ওয়ানডে ক্রিকেট থেকে অবসরে পাঠানো হচ্ছে ফিল হিউজের স্মৃতিমাখা ৬৪ নম্বর জার্সিকে।

আগুয়েরোতে মুগ্ধ পেলেগ্রিনি

বিশ্ব ফুটবলের সেরা পাঁচ স্ট্রাইকারের মধ্যে একজন সার্জিও আগুয়েরো- শুধুমাত্র এই বক্তব্য দিয়েই ক্ষান্ত হলেন না চিলিয়ান ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনি। এবার শিষ্যের গুণকীর্তনে আরো বেশি দরাজ ম্যানচেস্টার সিটি কোচ। জানালেন, আগুয়েরো বিশ্বফুটবলের সেরা দুই নক্ষত্র লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকেও ছাপিয়ে যাওয়ার ক্ষমতা রাখেন!

ঘাটাইল মাতাতে যাচ্ছেন আঁখি

সংগীতশিল্পী আঁখি আলমগীর এবার ঘাটাইলের মানুষের মন মাতাতে যাচ্ছেন। ৪ ডিসেম্বর টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে অবস্থিত শহীদ সালাউদ্দিন সেনানিবাসে অনুষ্ঠিত হবে বিশেষ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ‘লাল সবুজের আবাহন’ । এ অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করবেন আঁখি আলমগীর। এছাড়াও এ অনুষ্ঠানে গান গাইবেন নকুল কুমার বিশ্বাস, শাহনাজ বেলী সহ অন্যান্য শিল্পীরা। সঙ্গে থাকবে নাচ, কৌতুক সহ অন্যান্য পরিবেশনা।

সঙ্গীর কামনায় আপনি..

আপনি যতো সুন্দরই হোন না কেন, তার প্রকাশ না ঘটলে সবই বৃথা। মনের লুকানো বাসনায় আস্তানা করবে ঘুণপোকা। চেয়ে দেখা ছাড়া কোনো উপায় থাকবে না। অথচ একটু সচেতনতায় আপনি হতে পারেন সঙ্গীর কামনার শীর্ষে। মুখশ্রী যাই হোক না কেন, আপনার স্টাইল তার মনের না বলা কথা গুলো টেনে বের করে আনবে। আর তাই আপনাকে যে বিষয় গুলো একদমই অবহেলা করা উচিৎ নয় তাহল-
আগামী জানুয়ারি থেকেই প্রাথমিকভাবে এ কার্যক্রম শুরু করবে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। সে লক্ষ্যে ইসির জাতীয় পরিচয়পত্র নিবন্ধন অনুবিভাগ কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। সার্ভার স্টেশনগুলোর সঙ্গে ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্কের (ভিপিএন) মাধ্যমে ইসির তথ্যভাণ্ডারের (ডাটাবেজ) সঙ্গে সংযোগের কাজ শেষ হলে ভোটাররা জেলা-উপজেলা অফিস থেকেই যাবতীয় সেবা নিতে পারবেন। সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন, জেলা-উপজেলা ও বিভাগীয় সার্ভার স্টেশনগুলোর সরঞ্জাম ও সংযোগ স্থাপন সংক্রান্ত কার্যক্রম শেষের দিকে। সার্ভার স্টেশন সংযোগ চালু হলে সহজেই ভোটার তালিকায় নাম অন্তর্ভুক্তি,সংশোধন,হারিয়ে যাওয়া কার্ড উত্তোলন করা যাবে।

এবার হাতের নাগালে জাতীয় পরিচয়পত্র

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশের পুরুষদের মাঝেও নারীর প্রতি সহিংস মনোভাব দিন দিন বাড়ছে। পুলিশ সদর দপ্তরের নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ সেলের তথ্য অনুযায়ী, ২০০১ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত প্রায় এক যুগে ১ লাখ ৮৩ হাজার ৩৬৫ জন নারী নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। আর ইউনিসেফের তথ্য অনুসারে দক্ষিণ এশিয়ার কিশোরী নির্যাতনের হার সবচেয়ে বেশি বাংলাদেশে। অস্বাভাবিক বেড়ে চলা এই নারী সহিংসতার হার কমিয়ে আনতে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ ২০০৯ সালের ১৪ মে একটি যুগান্তকারী রায় প্রদান করেন। রায়ের পাশাপাশি আদালত স্বপ্রণোদিত হয়ে যৌন হয়রানি প্রতিরোধের একটি নির্দেশনাও প্রদান করেন। কিন্তু রায় পরবর্তী প্রায় পাঁচ বছরেরও বেশি সময়

হাইকোর্টের নির্দেশ বাস্তবায়নে ধীরগতি

রাজবাড়ী রেলওয়ের লোকোসেড। ৩০ একর জায়গার উপর নির্মিত এ সেড বন্ধ হয়ে গেছে ১৬ বছর আগে। আর এ কারণেই রেলওয়ের প্রায় শত’ কোটি টাকার সম্পদ বেদখল হয়ে যাচ্ছে। অন্যের দখলে চলে গেছে ১৫০টি কোয়ার্টার। লোকোসেড এলাকার ট্রেনের লোহার পাত, অফিস কক্ষের দরজা, জালানা খুলে নিয়ে গেছে। লোকোসেডের জায়গা দখল করে গড়ে উঠেছে দোকানপাট ও ঘরবাড়ি। রেলওয়ের পুকুর দখল করে তৈরি করা হয়েছে বাড়ি ঘর। কোথাও গড়ে উঠেছে অসামাজিক কার্যকলাপের আখড়া। এছাড়া স্থায়ীয় ক্ষমতাসীন দলের ছত্রছায়ায় কোয়ার্টারগুলো ভাসমান মানুষের কাছে ভাড়া দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ফলে দেশের পশ্চিমাঞ্চলের রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে।

শত কোটি টাকার সম্পদ লুট, কর্তৃপক্ষ নির্বিকার

বান্দরবান উপজেলা সদর খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি এলএসডি) ফখরুল আলম ওরফে মানিক। বেতন পান ৯ হাজার ৮শ টাকা, আর প্রতি মাসে খরচ করেন সোয়া ২ লাখ। মাসে দু’এক দিন অফিসে হাজিরা দেন। চট্টগ্রাম মহানগরীর অভিজাত আগ্রাবাদ আবাসিক এলাকায় ৩৫ হাজার টাকার ভাড়া বাসায় থাকেন তিনি। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সরকারি কাজ ফাঁকি দিয়ে ব্যক্তিগত কাজ করে অসৎ উপায়ে বিপুল অর্থ কামান তিনি। তিনি এখন কোটিপতি। সবাই জানার পরও তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না। বান্দরবান জেলা খাদ্য কর্মকর্তা থেকে শুরু করে শীর্ষ কর্মকর্তা পর্যন্ত তার কাছ থেকে সুবিধা নেয়ার কারণেই তিনি নির্বিঘ্নে সব করে যাচ্ছেন।

বেতন ৯৮০০, ব্যয় ২ লাখ টাকা