বুধবার, ২৭ মে ২০১৫ ।

রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবির যাচ্ছে হাতিয়ায়

বাংলাদেশ সরকার মিয়ানমার সীমান্তবর্তী রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরগুলোকে দক্ষিণাঞ্চলীয় দ্বীপ হাতিয়ায় স্থানান্তরিত করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করছে। ‘মিয়ানমার রিফিউজি সেল’ এর সরকারনির্বাচিত মুখপাত্র অমিত কুমার বাউল এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, প্রথানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে দ্রুততম সময়ে বাংলাদেশ সরকার বঙ্গোপসাগরের হাতিয়া দ্বীপে রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরটি স্থানান্তরিত করবে ...

ধারণাতীত ঝুঁকিতে, লাগবে ১৫০০ ট্রাক বালু

রাজধানীর পান্থপথে হোটেল সুন্দরবন সংলগ্ন রাস্তার পশ্চিমপাশে নির্মাণাধীন ন্যাশনাল ব্যাংক লিমিটেডের বহুতল ভবনের পাইলিংয়ের জন্য খোঁড়া গর্তে দেবে গেছে পার্শ্ববর্তী রাস্তার একটি অংশ। এতে মারাত্মক ঝুঁকিতে রয়েছে হোটেল সুন্দরবনের আট তলা ভবনটি। এতে ধারণার চেয়েও বেশি ঝুকিপূর্ণ ঘটনাস্থলের আশপাশের এলাকাগুলো। এমনটাই মন্তব্য করেছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আনিসুল হক। বুধবার বিকেল ৪টায় বুয়েট ও বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি বিশেষজ্ঞ টিমের সঙ্গে পরিদর্শন শেষে তিনি সাংবাদিকদের কাছে এ মন্তব্য করেন।

আদালত থেকে জেলহাজতে সালাহ উদ্দিন

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার তাকে আদালতে তোলা হলে শিলংয়ের জজ আদালত তাকে ১৪ দিনের জন্য জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। এর আগে গতকাল মঙ্গলবার তিনি হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান।
মাত্রাতিরিক্ত সীসা থাকায় ভারতের উত্তরপ্রদেশে ম্যাগি নুডুলস নিষিদ্ধ হওয়ায় পর টনক নড়েছে বাংলাদেশের খাদ্যের মাননিয়ন্ত্রণ সংস্থা বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই)। চলতি সপ্তাহের শুরুতেই দেশের পাঁচটি ইনস্ট্যান্ট নুডুলসের নমুনা সংগ্রহ করে ইতোমধ্যেই নিজস্ব গবেষণাগারে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। আগামী সপ্তাহের মধ্যে পরীক্ষার প্রতিবেদন হাতে পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছে বিএসটিআই কর্তৃপক্ষ। গত ২১ মে ভারতের উত্তর প্রদেশে ম্যাগি নুডুলস নিষিদ্ধ করার পাশাপাশি বাজার থেকে সব পণ্য তুলে নেয়া হয়। এরপর থেকে প্রশ্ন উঠতে শুরু করে বাংলাদেশে ম্যাগির ভবিষ্যৎ কি হবে? এ বিষয়ে এখনো পর্যন্ত ম্যাগির আমদানিকারক সংস্থা নেসলে বাংলাদেশের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।
তিন সিটি করপোরেশনে নির্বাচনে ১০টি কেন্দ্রে ৯০ শতাংশ ভোট পড়েছে। যেখানে পরীক্ষামূলক ভোটিংয়ে স্বাভাবিক অবস্থায় প্রতি বুথে ঘণ্টায় গড়ে সর্বোচ্চ ৭৫ ভোট পড়তে পারে। বুধবার দুপুরে আগারগাঁও এ ইসির ইলেকশন ট্রেইনিং ইনস্টিটিউটে (ইটিআই) মাগুরা-১ আসনের উপ-নির্বাচন উপলক্ষে এক পরীক্ষামূলক ভোটগ্রহণ কার্যক্রম থেকে এ তথ্য পাওয়া যায়। ইটিআই এর মহাপরিচালক খন্দকার মিজানুর রহমান বলেন, ‘আমরা মাগুরা উপ-নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুই ঘণ্টার এটি পরীক্ষামূলক ভোটগ্রহণ কার্যক্রম পরিচালনা করি। কার্যক্রমে প্রথম ঘণ্টায় ৭১টি ভোট পড়ে ও ২য় ঘণ্টায় ৮১টি ভোট পড়ে। এ থেকে ধারণা করা হয়, একটি বুথে ঘণ্টায় ৭৫টি মতোর ভোট পড়বে।’ এর আগে মাগুরা উপ-নির্বাচন উপলক্ষে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে এক বৈঠকে নির্বাচন কমিশনার আব্দুল মোবারক বলেন, ‘একটি বুথে ঘণ্টায় কতটি ভোট কাস্ট হতে পারে সেটি যাচাইয়ের জন্য নির্বাচন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটকে দায়িত্ব দেয়া যেতে পারে।’
বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সম্মেলন আগামী ২৫-২৬ জুলাই। তার আগে চলছে মহানগর ও জেলা পর্যায়ের কমিটিগুলোর সম্মেলন। এ মাসেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ছাত্রলীগের দুটি গুরুত্বপূর্ণ শাখা- ঢাকা মহানগর উত্তর ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সম্মেলন। ছাত্রলীগের ‘সুপার ইউনিট’ হিসেবে পরিচিত এ দুটি শাখার সম্মেলন হবে আগামী ২৮ ও ৩০ মে। ২৮ মে মহানগর উত্তরের এবং ৩০ মে মহানগর দক্ষিণের নেতা নির্বাচন করা হবে।
সম্প্রতি শত শত বাংলাদেশি অবৈধভাবে সাগর পথে মালয়েশিয়া পাচারের ঘটনায় উদ্বিগ্ন সরকার। এমনকি থাইল্যান্ডের গহীন অরণ্যে পাচারকৃত বাংলাদেশিদের গণকবরের সন্ধানও পাওয়া গেছে। অনেকে সাগরের মাঝে অনাহারে ভাসছে। এই অমানবিক ঘটনা ঠেকাতে এবং দেশের শ্রম সেক্টরের ভাবমূর্তি অক্ষুণ্ণ রাখতে মানব পাচারের মতো অপরাধ বিচারের জন্য ট্রাইব্যুনাল গঠিত হচ্ছে। আর এই অপরাধের জন্য সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড। এ বিষয়ে আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক বলেন, ‘মানব পাচারকারীদের বিচারের জন্য সাত বিভাগে সাতটি মানব পাচার অপরাধ ট্রাইব্যুনাল গঠন করা হবে। এ বিষয়ে অর্থ ও জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে চিঠিও দেয়া হয়েছে।’
ক্ষমতাকেন্দ্রিক দলাদলির এক পর্যায়ে বিদ্রোহী নেতারা ক্রমশ শক্তিহীন হয়ে যাচ্ছিল। আর এই সুযোগেই রাজনীতির মঞ্চে আর্বিভাব ঘটে ইসলামি শাসনতন্ত্র কায়েম করতে ইচ্ছুক কয়েকটি উপদলের। ২০০০ সাল থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত এই ইসলামিক গ্রুপগুলো বিভিন্ন উপায়ে নিজেদের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে চেষ্টা করে এবং প্রতিটি পদক্ষেপেই তারা এগিয়ে যেতে থাকে। রাজধানী মোগাদিসুতে ইউএসসি ক্ষমতা দখল করে থাকলেও দেশটির অন্যান্য অঞ্চলগুলো ক্রমশ কয়েকটি ইসলামিক গ্রুপ দখল করে নিলেও তা নিয়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে কোনো আলোচনা হয়নি।
সম্প্রতি বেশ কয়েক জন ‘নাস্তিক’ ব্লগারকে হত্যার দায় স্বীকারকারী ইসলামি জঙ্গি সংগঠন আনসারুল্লাহ বাংলা টিমকে নিষিদ্ধ করেছে সরকার। যদিও এইসব হত্যা তদন্তে তেমন কোনো অগ্রগতি দেখাতে পারেনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। তাই তাদের সুনির্দিষ্টভাবে চিহ্নিত করার আগেই নিষিদ্ধ করাটা কতোটা যৌক্তিক বা এ ধরনের জঙ্গি সংগঠন নির্মূলে কতোটা কার্যকর তা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করছেন নিরাপত্তা বিশ্লেষকেরা। কারণ এই জঙ্গি সংগঠনের ব্যাপারে গোয়েন্দা সংস্থাগুলো আগে থেকে কিছুই জানতো না। একটা হত্যাকাণ্ড সংগঠনের পর যখন এরা দায় স্বীকার করে ওয়েবসাইটে বিবৃতি দিচ্ছে তখনই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকে এদেরকেই হত্যাকারী বলে প্রচার করা হচ্ছে। কিন্তু সুনির্দিষ্টভাবে কাউকে চিহ্নিত করতে পারছে না। বা চিহ্নিত করার দাবি করা হলেও তার অগ্রগতি দৃষ্টিগ্রাহ্য হচ্ছে না।

চ্যাম্পিয়ন রাজ্জাকের সাউথ জোন

শিরোপা লড়াইয়ে ইসলামি ব্যাংক ইস্ট জোনের চেয়ে ৩ পয়েন্টের ব্যবধানে এগিয়ে থেকে তৃতীয় ও শেষ রাউন্ডে মাঠে নেমেছিল প্রাইম ব্যাংক দক্ষিণাঞ্চল। বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) তৃতীয় আসরের ট্রফি ঘরে তুলতে আব্দুর রাজ্জাক বাহিনীর প্রয়োজন ছিল বড়জোর ড্র। এরমাঝে ম্যাচের তৃতীয় দিনে প্রথম ইনিংসে লিড আদায়ের পর বুধবার শেষ দিনে সৌম্য সরকার ও মোসাদ্দেক হোসেনের অসাধারণ সেঞ্চুরিতে কাংখিত ড্র হয়। আর তাতে ২০ লাখ টাকার প্রাইজমানিসহ এবারের আসরের চ্যাম্পিয়ন হয়েছে প্রাইম ব্যাংক সাউথ জোন। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রাইম ব্যাংক সাউথ জোন ও ইসলামি ব্যাংক ইস্ট জোনের মধ্যকার ম্যাচে কেউই হারেনি। তবে এ ম্যাচে ব্যাটিং-বোলিংয়ে ভালো করায় রান রেটে এগিয়ে থেকে শিরোপা নিশ্চিত করেছে সাউথ জোন। বিসএলের শেষ রাউন্ডের ম্যাচটি শুরু হওয়ার আগে ইস্ট জোনের চেয়ে সাউথ জোন এগিয়ে ছিল দুই পয়েন্টে। তাই চট্টগ্রামের এই ম্যাচটি ফাইনালে পরিণত হয়।

৯ বছরের বিস্ময় বালকের ৯ রানে ৯ উইকেট

এই বয়সে হয়তো বইয়ের ব্যাগ বগল দাবা করে স্কুলে ছুটার কথা বালকটির। কিংবা অবসর সময়ে মেতে ওঠার কথা ভিডিও গেমস কিংবা পাড়ার ছেলে-ছোকরাদের সঙ্গে কানা-মাছি খেলায় মেতে ওঠার। কিন্তু তা না, মুশির খান বল হাতে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে মুম্বাইয়ের বিভিন্ন ময়দান। বয়স তো মাত্র ৯। এখনই একজন পুরোদস্তুর পেশাদার ক্রিকেটার হিসেবে গড়ে ওঠার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত হয়ে গেছে আইপিএলে ব্যাঙ্গালুরুর হয়ে খেলা সরফরাজ খানের ছোট ভাই। বিস্ময় বালক হয়ে উঠল রহস্যময় স্পিনার! মাত্র ৯ রান দিয়ে প্রতিপক্ষের ৯ উইকেট নিয়ে নজির গড়ল মুশির খান। মুম্বাইয়ের ৯ বছরের এই বালককে নিয়ে এখন ক্রিকেট দুনিয়ায় তোলপাড়। মুম্বাই ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের অনূর্ধ্ব১৪ টুর্নামেন্টে এই বিস্ময়কর কাণ্ড ঘটিয়েছে এ বছর আইপিএলে অভিষেক হওয়া সরফরাজ খানের ছোট ভাই।

‘ফুটবলের কালো দিন’

এমন অভাবনীয় ঘটনা এর আগে আর কখনও ঘটেছে কি না সন্দেহ। এ যে দেখি সর্ষের ভেতরেই ভুত ঢুকে বসে আছে। ফিফার মত ধনি একটি সংস্থার শীর্ষ আসনে বসে থেকে দিনের পর দিন কোটি কোটি ডলার ঘুষ নিয়েছেন কর্মকর্তার। দুর্নীতি করেছেন। অবশেষে ফাঁদে ধরা পড়লো ঘু ঘু। মার্কিন যুক্তরাষ্টের জাস্টিস ডিপার্টমেন্টের অনুরোধে সুইস পুলিশ অবশেষে আজ (বুধবার) সকালে জুরিখের হোটেল থেকে দুইজন সহ-সভাপতিসহ ৭জন ফুটবল প্রশাসককে গ্রেফতার করে। এ ঘটনাকে ফুটবলের কালো দিন হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন জর্ডানের প্রিন্স আলি বিন আল হুসেইন।

ঘুরে দাঁড়ানোর আড্ডা

সকাল গড়াচ্ছে দুপুরের দিকে। অবশ্য সূয্যি মামার অপার দয়া এসে পৌঁছায় না ভার্সেটাইল মাল্টিমিডিয়ার অফিসের এ ঘরে। বরং নিজের উপস্তিতি জানান না দিয়েই ঘরকে শীতল করছে এসি। আর তাই আরামেই আবেশেই শুরু হল আড্ডা। ভার্সেটাইলের কর্ণধার আরশাদ আদনান এবং চিত্রনায়িকা আইরিনের সঙ্গে বাংলামেইলের খোলামেলা আড্ডায় প্রসঙ্গ পরিবর্তনের দরকার হয়না, সাবলীল ভাবেই কথা হয় নানা প্রসঙ্গে।

হঠাৎ শিশুর টনসিল

এই গরম এই বৃষ্টি। রাতে হয়তো ফ্যান ছেড়ে ঘুমিয়েছেন, ভোর হতেই ঠাণ্ডায় কাপুনি উঠে গেছে। বড়দেরেই যেখানে এই অবস্থা ছোটদের অবস্থা আরও কাতর। অতিরিক্ত গরমে শরীরে ঘাম জমে। আবার বৃষ্টি হলে ঠাণ্ডা আবহাওয়ায় দেখা দেয় নানা সমস্যা। এসময় শিশুর টনসিলের সমস্যা বেশি হয়। শিশুদের গলায় টনসিল একটি সাধারণ সমস্যা। শীতের সময় এ রোগের প্রকোপ থাকে। গরমের দিনেও ঠাণ্ডা-গরমে টনসিলের সমস্যা হয়। টনসিল লসিকাগ্রন্থি, যা আমাদের গলার ভেতরে শ্বাস ও খাদ্যনালীর মুখে অবস্থিত। শ্বাস ও পরিপাকতন্ত্রের প্রবেশপথে প্রহরী হিসেবে টনসিল কাজ করে। খাদ্য ও বায়ুবাহিত ক্ষতিকারক পদার্থ ও রোগজীবাণু ধ্বংস করে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সৃষ্টিতেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। টনসিল শিশুদের চার থেকে ১০ বছর বয়সের মধ্যে খুব সক্রিয় থাকে। এই সময়েই শিশুরা টনসিলের সমস্যায় বেশি আক্রান্ত হয়।
ঠেলাঠেলিতে ছোট্ট চটিটা খুলে গেল। আর সেটা চোখে পড়তেই রাজকুমার নিষ্ঠা ও বিনয়ের সাথে অবনত হয়ে সেই জুতা কুড়িয়ে সযত্নে পরিয়ে দিয়ে তার দিকে তাকিয়ে মুচকি হাসলেন। এই প্রথম রাজকুমারের সাথে তার দৃষ্টি বিনিময়। দৃশ্যটা ‍হুবহু রূপকথার সিনডারেলার মতো। কিন্তু বাস্তবে ঘটে গেল কয়েকশ মানুষের সামনে। অবশ্য এখানে একটু পার্থক্য ছিল: ওই চটি জুতাটা কাচের না হয়ে ছিল লাল রেশমের আর এই সিডারেলার বয়স মাত্র চার বছর। কিন্তু রাজকুমারটা ছিল সত্যিকার। তবে কোঁকড়ানো চুলটা রূপকথার নায়কের সাথে বৈপরিত্য তৈরি করে দিচ্ছিল। তা বাদে এই রাজকুমার কোনো অংশে কম নয়, কারণ সে ব্রিটিশ রাজকুমার প্রিন্স হ্যারি!

সত্যিকারের সিনডারেলা

বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সম্মেলন আগামী ২৫-২৬ জুলাই। তার আগে চলছে মহানগর ও জেলা পর্যায়ের কমিটিগুলোর সম্মেলন। এ মাসেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ছাত্রলীগের দুটি গুরুত্বপূর্ণ শাখা- ঢাকা মহানগর উত্তর ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সম্মেলন। ছাত্রলীগের ‘সুপার ইউনিট’ হিসেবে পরিচিত এ দুটি শাখার সম্মেলন হবে আগামী ২৮ ও ৩০ মে। ২৮ মে মহানগর উত্তরের এবং ৩০ মে মহানগর দক্ষিণের নেতা নির্বাচন করা হবে।

ছাত্রলীগের দুই সুপার ইউনিটে আসছেন কারা

সম্প্রতি বেশ কয়েক জন ‘নাস্তিক’ ব্লগারকে হত্যার দায় স্বীকারকারী ইসলামি জঙ্গি সংগঠন আনসারুল্লাহ বাংলা টিমকে নিষিদ্ধ করেছে সরকার। যদিও এইসব হত্যা তদন্তে তেমন কোনো অগ্রগতি দেখাতে পারেনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। তাই তাদের সুনির্দিষ্টভাবে চিহ্নিত করার আগেই নিষিদ্ধ করাটা কতোটা যৌক্তিক বা এ ধরনের জঙ্গি সংগঠন নির্মূলে কতোটা কার্যকর তা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করছেন নিরাপত্তা বিশ্লেষকেরা। কারণ এই জঙ্গি সংগঠনের ব্যাপারে গোয়েন্দা সংস্থাগুলো আগে থেকে কিছুই জানতো না। একটা হত্যাকাণ্ড সংগঠনের পর যখন এরা দায় স্বীকার করে ওয়েবসাইটে বিবৃতি দিচ্ছে তখনই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকে এদেরকেই হত্যাকারী বলে প্রচার করা হচ্ছে। কিন্তু সুনির্দিষ্টভাবে কাউকে চিহ্নিত করতে পারছে না। বা চিহ্নিত করার দাবি করা হলেও তার অগ্রগতি দৃষ্টিগ্রাহ্য হচ্ছে না।

জঙ্গি সংগঠনকে নিষিদ্ধ করাই যথেষ্ট?

জলে-স্থলে সবখানে অনিরাপদ বোধ করায় তাবলীগে ঠাঁই নিয়েছে উখিয়া-টেকনাফের শীর্ষ বেশ কয়েকজন মানবপাচারকারী। দাঁড়ি-গোফ রেখে পুরোদস্তুর ধর্মপ্রাণ মুসল্লি বনে গেছেন তারা। প্রশাসনের কঠোর নজরদারীর মুখেই আত্মগোপনের চেষ্টায় তারা মিশে গেছে তাবলীগে। স্থানীয় পর্যায়ে অনুসন্ধান চালিয়ে বিস্ময়কর এ তথ্য পাওয়া গেছে। বিষয়টি গোয়েন্দা সংস্থার নজরেও এসেছে। গোয়েন্দা পুলিশের সূত্রমতে, কয়েক মাস আগে থেকেই শীর্ষ মানব পাচারকারীরা তাবলীগে যোগ দিয়ে আত্মগোপন করার চেষ্টা করে। এ তথ্য হাতে আসার পরে বিষয়টি পর্যবেক্ষণে রাখে ডিবিসহ গোয়েন্দা সংস্থাগুলো। শেষ অবধি তথ্যের সত্যতা খুজে পায় গোয়েন্দারা। মাঠ পর্যায়ে অনুসন্ধান করে জানা গেছে, থাইল্যান্ডে অভিবাসীদের গণকবরের সন্ধান পাওয়ার পর বাংলাদেশে প্রশাসন কঠোর অবস্থান নিলে ভরকে যায় পানবপাচারকারীরা। এর মধ্যে পাচারকারীদের ধরতে পুলিশ ‘বন্দুকযুদ্ধ’ শুরু করলে তারা সটকে পড়ে। মানবপাচারের বিষয়টি ‘টক অব দ্য ওয়ার্ল্ড’ হলে দেশজুড়ে প্রশাসনের তৎপরতা জোরদার হয়। এ পরিস্থিতিতে জলে-স্থলে দেশের কোনো জায়গায় আত্মগোপন করার ক্ষেত্রে আস্থা না পাওয়ায় নিরূপায় হয়ে তাবলীগ জামায়াতকে নিরাপদ আশ্রয়স্থান হিসেবে বেছে নিয়েছে।

গা বাঁচাতে পাচারকারীরা এখন তাবলীগে